বিংশ শতকের আশির শেষ থেকে নব্বই এর দশকের শুরুর দিকে আধুনিক বাংলা গান তার গতি ও ছন্দ
যেন অনেকটাই হারিয়ে ফেলেছিল। বিশ্বায়ণের সূচনা ও হিন্দী গানের জগতের অসাধারন কথা ও সুরের
মায়াজাল যেন বাঙালীকে আচ্ছন্ন করে ফেলছিল। বাংলা গানের তৃষ্ণা বাঙালী কে মেটাতে হোতো কেবল ফেলে
আসা দিনের বাংলা গান থেকে। আধুনিক বাংলা গানের তখন শ্বাসরুদ্ধ অবস্থা।  

ঠিক সেই সময়ে কয়েকজন তরুণ-তরুণী বাঙালীকে শোনালেন একেবারে নতুন স্বাদের গান| তাঁরা বললেন যে
তাঁরা গাইছেন জীবনমুখী গান। বাংলা গান যেন তাঁদের যাদুর ছোঁওয়ায় ফিরে পেল তাঁর প্রাণ। নচিকেতা
নচিকেতা চক্রবর্তী, বাংলা গানের সেই তরুণ কাণ্ডারীদের অন্যতম| তাঁরা শোনালেন নিজের সুর দেওয়া গান,
নিজের কথায়।

গান তো কেবল সুর নয়, গান মানে কথাও। আর কথা মানেই কবিতা। জীবনমূখী-গান-রূপী যে কবিতা তাঁরা
রচনা করেছেন তা বাদ দিলে বাংলা কবিতাই অসমাপ্ত থেকে যাবে। আমরা এই সাইটের
কবিদের সভায়
তাঁদের আসন দিতে পেরে গর্বিত।

আমরা এখানে নচিকেতার কবিতা তাঁর নানান গানের রেকর্ড থেকে শুনে তুলে দিয়েছি।
কবি নচিকেতার জীবনমুখী গান