কবি বেলা পাল-এর কবিতা
যে কোন গানের উপর ক্লিক করলেই সেই গানটি আপনার সামনে চলে আসবে।
*
সমুখে আগতদিন,
ক্রমশঃ আলোকহীন,
.               তোমারিত বাণী  |

এমন ভবিষ্য-বাণী
অমোঘ বলেই মানি,
.               প্রাণে জাগে ভয় |
তোমার অভয় বাণী
তখনি স্মরণে আনি,
.                অম্ নি নির্ভয় |
আসুক শান্তি ও সুখ,
অথবা দুর্দিন দুখ,
.                চরণেতে রেখো |

জীবনে চলার পথে,
প্রতিদিন প্রতি পদে,
.                স্মরণেতে থেকো  |

.            ******************          
.                                                                                     
উপরে    



মিলনসাগর   
*
.                  সেই আয়োজন” |
সে ডাকেতে সাড়া দিতে
.                  যত মাতৃগণ
শশব্যস্তে সমাগত,
.                  গোপীরা যেমন |
জননীরা জানে না তো
.                  কেন এ মিলন,
জানে শুধু ডেকেছে যে
.                   গুরু নারায়ণ |
মাতৃ-জাগরণ আজ
.                   বড় প্রয়োজন,
সে উদ্দেশে এ-সভার
.                   এত আয়োজন |

.            ******************          
.                                                                                     
উপরে    



মিলনসাগর   
*
দেবশিশু আসিল ধরাতে
.                রাস রাত্রি গভীরে  |

রাজাপুর জানিল না মর্ম
.                 আগমন কাহার,
সংস্থাপিতে মানবধর্ম
.                 ( তিনি ) এসেছেন আবার  |

.            ******************          
.                                                                                     
উপরে    



মিলনসাগর   
*
মাতোয়ারা উৎসবে সমগ্র ধরনী,
মৃদঙ্গ মন্দিরা বাজে মন্দির  অঙ্গনে
মগ্ন হয়ে ভক্তগণ মাতে আলিঙ্গনে |
মনোহর সে মুহূর্তে যেন ত্রিভূবন,
মধুরম্ মধুরম্ করে উচ্চারণ |

.        ******************          
.                                                                                     
উপরে    



মিলনসাগর   
*
“কথা মন্ত্রে” পার হবো জীবন পাথার ||

.        ******************          
.                                                                                     
উপরে    



মিলনসাগর   
মনের মাঝে যে তুমি লুকিয়ে বিরাজ----
সে চেতনা আমাদের জাগেনিতো আজো |

সমুখে না দেখে তাই বড় ভয় পাই,
স্নেহের আশ্রয় কোল বুঝি আর নাই |
কখনো কখনো মনে অনুভবে পাই,
হৃদয়ে গাঁথার আগে আবার হারাই  |

দিশেহারা হ’য়ে পড়ি পাই না ঠিকানা,
পথিককে কে দেখাবে পথের নিশানা ?
তখনি “মাভৈঃ মন্ত্র” চেতনায় জাগে-----
রেখে গেছ কত বাণী আদরে সোহাগে |

অবয়বে তুমি নাই, আছে কত কথা----