কবি রজনীকান্ত সেন-এর "শেষ দান" কাব্যগ্রন্থের গান ও কবিতা
*
আমরা ভূম্যধিকারী বঙ্গে
কবি রজনীকান্ত সেন
শেষ দান (১৯২৭) কাব্যগ্রন্থের গান ও কবিতা

জমিদার

আমরা ভূম্যধিকারী বঙ্গে,
সদা এয়ার-বন্ধু-সঙ্গে
কত ফুর্তিতে করি সময়-হত্যা,
.        তাস, পাশা, চতুরঙ্গে।

মোদের
highly furnished room,
তাতে দিন-রাত ‘দেরে তুম্’
ঐ তবলার চাঁটি, ‘বাহবার’ চোটে
.        নাই পড়শীর ঘুম।

চলছে সুন্দর টানাপাখা,
তার ঝালরে আতর-মাখা,
আর হরদম পান-তামাক চলছে,
.        গল্প চলছে ফাঁকা।

আছে ডজন চারেক চাকর,
ব’সে, মাচ্ছে মাছি ও মাকড়,
(দেখ) তাদেরো মাথায় আলবার্ট টেরী
.        (ভুড়িটিও বেশ ডাগর)
.        তারাও রসিক নাগর।

মোদের আছে পেয়ারের ভৃত্য,
তারা যোগায় মেজাজ নিত্য ;
আর উদর পুরিয়া প্রসাদ পাইয়া
.        ‘বা! খুশি’ তাদের চিত্ত।

বাইরে সমাজের ধারো ধারি,
বাড়িতে পুজোর জমক ভারি ;
আবার
half a score বাবুর্চি আছে,
.        রেঁধে দেয় চপ, কারি।

রোজ ছানা ও মাখন চলে,
আমরা রোদে গেলে যাই গ’লে,
ওই কস্তুরী দিয়ে দাঁত মাজি, আর
.        আঁচাই গোলাপ জলে।

দেশে কত দুখী ভাতে মরে,
তাদের দেইনে পয়সাটি হাতে ক’রে ;
তারা গেট থেকে পেয়ে অর্ধচন্দ্র
.        রাস্তায় প’ড়ে মরে।

কিন্তু
D.M., D.S., D.J.
এলে, ভয়ে ঘেমে উঠি ভিজে.
তাদের খানা দেই আর বুট চাটি,
.        (আহা) নতুবা জনম মিছে।

খেয়ে, স্কুলে
severe beating,
ওই First Book of Reading,
হাঁ, প’ড়েছিনু বটে, এখনো ভুলিনি---
.         
“The blind man is bleating,”

যত সাহেব-সুবোর সনে
বলি ইংরেজি প্রাণপণে
ওই First Book-এর বিদ্যের চোটে,
.        তারাও প্রমাদ গণে।

Brain-এ সয় নাক’ গুরু চাপ্ টা
আর প’ড়েই বা কোন্ লাভটা?
‘Yes’, ‘no’ আর ‘very good’ দিয়ে
.        বুঝালেই হ’লো ভাবটা।

আমরা এত যে আরামে থাকি,
তবু কোন রোগ নাই বাকি---
Dyspepsia, Debility, আর
.        কিছু কিছু ঢেকে রাখি।

ক’রে প্রজার রক্ত শোষণ,
করি মোসাহেব-দল পোষণ ;
আর প্রজার বিচার আমলারা করে,
.        কোথায় আপীল মোসন?

করি হাতিতে চড়িয়া ভিক্ষে,
কেহ না দিলে পায় সে শিক্ষে,
তারা ভিক্ষে-খরচা দিতে, জমি ছেড়ে
.        উঠেছে অন্তরীক্ষে।

তবু ঘোচে না ঋণের দায় ;
ওই খেয়ালেই তো মাথা খায়!
দেখ, সুবিধা ঘটিলে, দু’চার হাজার
.        এক রেতে উড়ে যায়।

ঋণ-শোধের উপায় কুত্র?
শুধু অধঃপাতের সূত্র।
বাবা করেছিল, আমি উড়ালাম,
.        বাবার যোগ্য পুত্র!

ঠিক বলেছিল
Darwin,
We are very sanguine,
মোদের জীবনটা এক চিরবাঁদ্ রামী,
.        সম্মুখে শুধু
ruin!

এই ছোট Autobiography
প’ড়ে, কে কি ভাবে তাই ভাবি---
কমলা গো! তুমি কার হাতে দিলে
.        তোমার ঝাঁপির চাবি?
*
ওরে মন, তোর জ্যোতিষে, হারায় দিশে
কবি রজনীকান্ত সেন
শেষ দান (১৯২৭) কাব্যগ্রন্থের গান ও কবিতা

সৃষ্টির কৌশল

ওরে মন, তোর জ্যোতিষে, হারায় দিশে
.        অবাক্ চেয়ে আকাশ-পানে,
ওরে ঐ কোটি বছর, রবির ভিতর
.        পুড়ছে কি তা মালিক জানে!

এত কাঠ কোথায় থাকে, কে দেয় তাকে,
*
এমনি ক’রে চাবি দিয়ে
কবি রজনীকান্ত সেন
শেষ দান (১৯২৭) কাব্যগ্রন্থের গান ও কবিতা
১৫ আষাঢ় ১৩১৭, রাত্রি, হাসপাতালের শয্যায় লেখা।

বিশ্ব-যন্ত্র

.             এমনি ক’রে চাবি দিয়ে
.                     দিয়েছে এই বিশ্ব-যন্ত্র ঘুরিয়ে,
.             কোটি কোটি বছর যাচ্ছে,
.                     তবু চাবির দম যায় নাক’ ফুরিয়ে!

.             বলিহারী, বাহবা, ওস্তাদের কেরামৎ!
*
নীল নভঃতলে চন্দ্র তারা জ্বলে
কবি রজনীকান্ত সেন
শেষ দান (১৯২৭) কাব্যগ্রন্থের গান ও কবিতা

মধুমাস

.        নীল নভঃতলে চন্দ্র তারা জ্বলে,
.                হাসিছে ফুলরানী ফুলবনে।
.        হরষ-চঞ্চল সমীর সুশীতল
.                কহিছে শুভ কথা জনে জনে।

.        মধুর মধুমাসে আকুল অভিলাষে
*
জনম-জনম-ভরি গিরি নদী কানন
কবি রজনীকান্ত সেন
শেষ দান (১৯২৭) কাব্যগ্রন্থের গান ও কবিতা

হারা-নিধি

জনম-জনম-ভরি গিরি নদী কানন,
.        ঢুঁড়ই জীবন-নিধিয়া হারে!
যব হাম ধরণী-পর, নীল গগন-তল
.        চলত মরীচিত বঁধুয়া হারে!

গেহ তেয়াগনু, দিবস গোয়ায়নু
.        অনশনে বহুত পিয়াসে হারে!
আজু মিলল  সখি, হৃদয়কী রাজা,
.        আর নাহি ছোড়ব জিয়াসে হারে!

.                ************************          

রজনীকান্তের শেষ দান কাব্যগ্রন্থের সূচিতে . . .      

রজনীকান্তের সদ্ভাব কুসুম কাব্যগ্রন্থের সূচিতে . . .     
রজনীকান্তের আনন্দময়ী কাব্যগ্রন্থের সূচিতে . . .      
রজনীকান্তের গানের সূচিতে . . .   
রজনীকান্তের বাণী কাব্যগ্রন্থের সূচিতে . . .   
রজনীকান্তের অভয়া কাব্যগ্রন্থের সূচিতে . . .   
রজনীকান্তের কল্যাণী কাব্যগ্রন্থের সূচিতে . . .   
রজনীকান্তের বিশ্রাম কাব্যগ্রন্থের সূচিতে . . .   
রজনীকান্তের অমৃত কাব্যগ্রন্থের সূচিতে . . .    
রজনীকান্তের অন্যান্য কবিতা ও গানের সূচিতে . . .   


মিলনসাগর   
*
কি মধু-কাকলি ওরে পাখি
কবি রজনীকান্ত সেন
শেষ দান (১৯২৭) কাব্যগ্রন্থের গান ও কবিতা

গানটির স্বরলিপি আমরা পাই কল্যাণী কাজী কৃত "১০১টি সুনির্বাচিত রজনীকান্তের গানের
স্বরলিপি" গ্রন্থ থেকে। সেখানে রাগ ও তালের উল্লেখ না থাকায়, সেই স্বরলিপি থেকেই তা
আমাদের জানিয়েছেন সঙ্গীতজ্ঞ  
দেবাশিস রায়            

বিরহ

॥ পরজ ও বসন্তের ছোঁওয়া, দাদরা॥

.              কি মধু-কাকলি ওরে পাখি,
*
নয়ন-মনোহারিকে! গহন-বনচারিকে
কবি রজনীকান্ত সেন
শেষ দান (১৯২৭) কাব্যগ্রন্থের গান ও কবিতা

অভিসারিকা

॥ তিলক কামোদ, ঝাঁপতাল॥

.              নয়ন-মনোহারিকে! গহন-বনচারিকে!
*
ঐ শোন কারে ডাকে
কবি রজনীকান্ত সেন
শেষ দান (১৯২৭) কাব্যগ্রন্থের গান ও কবিতা

প্রেমের ডাক

.              ঐ শোন কারে ডাকে?
*
চল ফিরে চল, তারে পাওয়া যাবে না
কবি রজনীকান্ত সেন
শেষ দান (১৯২৭) কাব্যগ্রন্থের গান ও কবিতা

আশাহত

॥ বেহাগ, একতালা॥

চল ফিরে চল, তারে পাওয়া যাবে না!
*
মা, তোর স্নেহ-গগনে উদিল
কবি রজনীকান্ত সেন
শেষ দান (১৯২৭) কাব্যগ্রন্থের গান ও কবিতা

পরিণয় মঙ্গল

মা, তোর স্নেহ-গগনে উদিল
.        আজি ফুল্ল যুগল চাংদ গো ;
অবিরল ধারে বহিছে সুধা
.        নাহি মানে কোন বাঁধ গো।