*
গীতাঞ্জলি (বাংলা), রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

.     ইংরেজী গীতাঞ্জলিতে রচনা সংখ্যা ১ এর মূল বাংলা গীত

আমারে তুমি অশেষ করেছ
.         এমনি লীলা তব |
ফুরায়ে ফেলে আবার ভরেছ
.         জীবন নব নব |
কত যে গিরি কত যে নদীতীরে
বেড়ালে বহি ছোট এ বাঁশিটিরে,
কত যে তান বাজালে ফিরে ফিরে
.          কাহারে তাহা কব |
তোমারি এই অমৃতপরশে
.          আমার হিয়াখানি
হারাল সীমা বিপুল হরষে
.           উথলি উঠে বাণী |
আমার শুধু একটি মুঠি ভরি
দিতেছ দান দিবস বিভাবরী,
হলনা সারা কত না যুগ ধরি
.            কেবলি আমি লব |

.               **************


শান্তিনিকেতন
৭ বৈশাখ ১৩১৯  

.           
Tagore's translation of this song for English Gitanjali
                                           গীতাঞ্জলির সূচির পাতায়  
.                                         
Gitanjali (English) index page      
মিলনসাগর
রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের গীতাঞ্জলি
Gitanjali by Rabindra Nath Tagore
The Nobel Prize for literature in 1913 was awarded to Tagore for his book of poems Gitanjali (Song Offerings)
...
বাংলায় গীতাঞ্জলি প্রকাশিত হয় শান্তিনিকেতন থেকে ১৩১৭ বঙ্গাব্দের ভাদ্র মাসে ১৫৭টি গান নিয়ে | পরে ১লা নভেম্বর ১৯১৩ সালে
লণ্ডনের ইণ্ডিয়া সোসাইটি থেকে একই নামে কবি উইলিয়াম বাটলার ইয়েটস এর লেখা ভূমিকা নিয়ে রবীন্দ্রনাথের নিজের
ইংরেজীতে অনুবাদ করা বইটি প্রকাশিত হয় ১০৩টি গান নিয়ে, যার মধ্যে ৫৩টি গান বাংলা গীতাঞ্জলি থেকে নেওয়া হয়েছিল |  এই
ইংরেজী বইটির জন্যই তিনি ১৯১৩ সালে নোবেল পুরস্কারে ভূষিত হন |

Tagore's Gitanjali(Song Offerings) was first published from Shantiniketan in West Bengal, India in 1912 in
Bengali. It contained 157 songs. Later on the English translation, by Tagore himself, of the Bengali book with
the same name, with an introduction by poet William Butler Yeats, was published from India Society, London
on 1st Nov 1912. The book contained 103 songs out of which 53 were taken from the Bengali
version. Gitanjali in English earned Tagore The Nobel Prize in 1913.
....
*
গীতাঞ্জলি (বাংলা), রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

.     ইংরেজী গীতাঞ্জলিতে রচনা সংখ্যা ৪ এর মূল বাংলা গীত

আমার সকল অঙ্গে তোমার পরশ
লগ্ন হয়ে রহিয়াছে রজনী-দিবস
প্রাণেশ্বর, এই কথা নিত্য মনে আনি
রাখিব পবিত্র করি মোর তনুখানি |
মনে তুমি বিরাজিছ, হে পরম জ্ঞান,
এই কথা সদা স্মরি মোর সর্বধ্যান
সর্বচিন্তা হতে আমি সর্বচেষ্টা করি
সর্বমিথ্যা রাখি দিব দূরে পরিহারি |

হৃদয়ে রয়েছে তব অচল আসন
এই কথা মনে রেখে করিব শাসন
সকল কুটিল দ্বেষ, সর্ব অমঙ্গল---
প্রেমেরে রাখিব করি প্রস্ফুট নির্মল |
সর্ব কর্মে তব শক্তি এই জেনে সার,
করিব সকল কর্মে তোমারে প্রচার |

.               **************

১৩০৮  
.          
Tagore's translation of this song for English Gitanjali
.                                                 গীতাঞ্জলির সূচির পাতায়  
.                                        
Gitanjali (English) index page     


মিলনসাগর
*
গীতাঞ্জলি (বাংলা), রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

.     ইংরেজী গীতাঞ্জলিতে রচনা সংখ্যা ৫ এর মূল বাংলা গীত

তুমি      একটু কেবল বসতে দিয়ো কাছে |
.          আমায় শুধু ক্ষণেক তরে |
আজি     হাতে আমার যা কিছু কাজ আছে
.           আমি সাঙ্গ করব পরে |
.                     না চাহিলে তোমার মুখপানে,
.                     হৃদয় আমার বিরাম নাহি জানে,
.                     কাজের মাঝে ঘুরে বেড়াই যত
.                             ফিরি কূলহারা সাগরে |

বসন্ত      আজ উচ্ছাসে বিলাসে
.           এল আমার বাতায়নে |
অলস      ভ্রমর গুঞ্জরিয়া আসে
.            ফেরে কুঞ্জের প্রাঙ্গনে |
.                      আজে শুধু একান্তে আসীন
.                      চোখে চোখে চেয়ে থাকার দিন,
.                      আজকে জীবন-সমর্পণের গান
.                              গাব নীরব অবসরে |

.                                **************

২৯ চৈত্র ১৩১৮
শিলাইদা   

.            
Tagore's translation of this song for English Gitanjali  
.                                                 
গীতাঞ্জলির সূচির পাতায়  
.                                        
Gitanjali (English) index page      

মিলনসাগর
*
গীতাঞ্জলি (বাংলা), রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

.     ইংরেজী গীতাঞ্জলিতে রচনা সংখ্যা ১২ এর মূল বাংলা গীত

অনেক কালের যাত্রা আমার
.        অনেক দূরের পথে,
প্রথম বাহির হয়েছিলেম
.         প্রথম আলোর রথে |
গ্রহে তারায় বেঁকে বেঁকে
পথের চিহ্ন এলেম এঁকে
কত যে লোক লোকান্তরের
.         অরণ্যে পর্বতে |

সবার চেয়ে কাছে আসা
.         সবার চেয়ে দূর |
বড় কঠিন সাধনা, যার
.         বড় সহজ সুর |
পরের দ্বারে ফিরে, শেষে
আসে পথিক আপন দেশে
বাহির ভুবন ঘুরে মেলে
.         অন্তরের ঠাকুর |

.           **************

.          
Tagore's translation of this song for English Gitanjali
.                                                 গীতাঞ্জলির সূচির পাতায়  
.                                       
Gitanjali (English) index page      

মিলনসাগর
*
গীতাঞ্জলি (বাংলা), রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

.     ইংরেজী গীতাঞ্জলিতে রচনা সংখ্যা ২০ এর মূল বাংলা গীত


যেদিন ফুটল কমল কিছুই জানি নাই
.         আমি ছিলেম অন্যমনে |
আমার সাজিয়ে সাজি তারে আনি নাই
.         সে যে রইল সঙ্গোপনে |
.                        মাঝে মাঝে হিয়া আকুল প্রায়
.                        স্বপন দেখে চম্ কে উঠে চায়,
.                        মন্দ মধুর গন্ধ আসে হায়
.                           কোথায় দখিন সমীরণে |

সেই সুগন্ধে ফিরায় উদাসিয়া
.          আমায় দেশে দেশান্তে |
যেন সন্ধানে তার উঠে নিঃশ্বাসিয়া
.           ভুবন নবীন বসন্তে |
.                        কে জানিত দূরে ত নেই সে
.                        আমারি গো আমারি সেই যে,
.                        এ মাধুরী ফুটেছে হায়রে
.                              আমার হৃদয় উপবনে |

.                                     **************

.          
Tagore's translation of this song for English Gitanjali
.                                                 গীতাঞ্জলির সূচির পাতায়  
.                                        
Gitanjali (English) index page      
মিলনসাগর
*
গীতাঞ্জলি (বাংলা), রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

.     ইংরেজী গীতাঞ্জলিতে রচনা সংখ্যা ২১ এর মূল বাংলা গীত


এবার    ভাসিয়ে দিতে হবে আমার
.                  এই তরী |
.          তীরে বসে যায় যে বেলা
.                   মরি গো মরি |
.                          ফুল ফোটানো সারা করে
.                          বসন্ত যে গেল সরে
.                          নিয়ে ঝরা ফুলের ডালা
.                                  বল কি করি!

.           জল উঠেছে ছলছলিয়ে
.                   ঢেউ উঠেছে দুলে,
.           মর্মরিয়ে ঝরে পাতা
.                    বিজন তৃণমূলে |
.                           শূণ্যমনে কোথায় তাকাস ?
.                           সকল বাতাস সকল আকাশ
.                           ঐ পারের ঐ বাঁশির সুরে
.                                   উঠে শিহরি |

.                                     **************

শিলাইদা
২৬ চৈত্র ১৩১৮

.            
Tagore's translation of this song for English Gitanjali
.                                                   গীতাঞ্জলির সূচির পাতায়  
.                                          
Gitanjali (English) index page  


মিলনসাগর
*
গীতাঞ্জলি (বাংলা), রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

.     ইংরেজী গীতাঞ্জলিতে রচনা সংখ্যা ২৫ এর মূল বাংলা গীত


মাঝে মাঝে কভু যদি অবসাদ আসি
অন্তরের আলোক পলকে ফেলে গ্রাসি,
মন্দপদে যবে শ্রান্তি আসে তিল তিল
তোমার পূজার বৃন্ত করে সে শিথিল
ম্রিয়মাণ --- তখনো না যেন করি ভয়,
তখনো অটল আশা যেন জেগে রয়
তোমা-পানে |

তোমা-'পরে করিয়া নির্ভর
সে শ্রান্তির রাত্রে যেন সকল অন্তর
নির্ভয়ে অর্পন করি পথধূলিতলে
নিদ্রারে আহ্বান করি | প্রাণপন বলে
ক্লান্ত চিত্তে নাহি তুলি ক্ষীণ কলরব
তোমার পূজার অতি দরিদ্র উত্সব |

রাত্রি এনে দাও তুমি দিবসের চোখে
আবার জাগাতে তারে নবীন আলোক |

.              **************

১৩০৮
.           
Tagore's translation of this song for English Gitanjali
.                                                 গীতাঞ্জলির সূচির পাতায়  
.                                        
Gitanjali (English) index page      

মিলনসাগর
*
গীতাঞ্জলি (বাংলা), রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

.     ইংরেজী গীতাঞ্জলিতে রচনা সংখ্যা ৩১ এর মূল বাংলা গীত


বন্দী তোরে কে বেঁধেছে |
.        এত কঠিন করে ?

প্রভু আমায় বেঁধেছে গো
.        বজ্রকঠিন ডোরে |
মনে ছিল সবার চেয়ে
.         আমিই হব বড়
রাজার কড়ি করেছিলাম
.         আমার ঘরে জড় |
ঘুম লাগিতে শুয়েছিলেম
.         প্রভুর শয্যা পেতে
জেগে দেখি বাঁধা আছি
.          আপন ভাণ্ডারেতে |
আমরা যাহা লুঠ করে নিই
.          তোমার সে ধন প্রভু,
আমরা ঘুমাই তুমি জাগো,
.           ভুলবো না আর কভু |

বন্দী ওগো কে গড়েছে
.           বজ্রবাঁধনখানি ?

আপনি আমি গড়েছিলেম
.           বহু যতন মানি |
ভেবেছিলেম আমার প্রতাপ
.           জগৎ করে গ্রাস---
আমি রব একলা স্বাধীন
.            সবাই হবে দাস |
গড়তেছিলেন রজনী দিন
.            লোহার শিকলখানা---
কত আগুন কত আঘাত
.            নাইক তার ঠিকানা |
গড়া যখন শেষ হয়েছে
.            কঠিন সুকঠোর---
দেখি আমায় বন্দী করে
.            আমারি এই ডোর |
.              **************

বোলপুর
৯ই বৈশাখ ১৩১৩

.           
Tagore's translation of this song for English Gitanjali
.                                                  গীতাঞ্জলির সূচির পাতায়  
.                                         
Gitanjali (English) index page    


মিলনসাগর
*
গীতাঞ্জলি (বাংলা), রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

.     ইংরেজী গীতাঞ্জলিতে রচনা সংখ্যা ৩৫ এর মূল বাংলা গীত


চিত্ত যেথা ভয়শূণ্য, উচ্চ যেথা শির,
জ্ঞান যেথা মুক্ত, যেথা গৃহের প্রাচীর
আপন প্রাঙ্গণতলে দিবসশর্বরী
বসুধারে রাখে নাই খণ্ড খুদ্র করি,
যেথা বাক্য হৃদয়ের উত্সমুখ হতে
উচ্ছ্বসিয়া উঠে, যেথা নির্বারিত স্রোতে
দেশে দেশে দিশে দিশে কর্মধারা ধায়
অজস্র সহস্রবিধ চরিতার্থতায়---

যেথা তুচ্ছ আচারের মরুবালুরাশি
বিচারের স্রোতঃপথ ফেলে নাই গ্রাসি,
পৌরুষেরে করেনি শতধা ; নিত্য যেথা
তুমি সর্ব কর্ম চিন্তা আনন্দের নেতা---
নিজ হস্তে নির্দয় আঘাত করি পিতঃ,
ভারতের সেই স্বর্গে কর জাগরিত |
.              **************

১৩০৮


.           
Tagore's translation of this song for English Gitanjali   
.                                                  গীতাঞ্জলির সূচির পাতায়  
.                                         
Gitanjali (English) index page    


মিলনসাগর
*
গীতাঞ্জলি (বাংলা), রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

.     ইংরেজী গীতাঞ্জলিতে রচনা সংখ্যা ৩৬ এর মূল বাংলা গীত


তব কাছে এই মোর শেষ নিবেদন---
সকল ক্ষীণতা মম করহ ছেদন
দৃঢ়বলে, অন্তরের অন্তর হইতে,
প্রভু মোর | বীর্য দেহো সুখের সহিতে
সুখেরে কঠিন করি | বীর্য দেহো দুখে,
যাহে দুঃখ আপনারে শান্তস্মিতমুখে
পারে উপেক্ষিতে | ভকতিরে বীর্য দেহো
কর্মে যাহে হয় সে সফল, প্রীতি স্নেহ
পূণ্য উঠে ফুটি | বীর্য দেহো ক্ষুদ্রজনে
না করিতে হীনজ্ঞান, বলের চরণে
না লুটিতে | বীর্য দেহো চিত্তেরে একাকী
প্রত্যহের তুচ্ছতার ঊর্ধ্বে দিতে রাখি |

বীর্য দেহো তোমার চরণে পাতি শির
অহর্নিশি আপনারে রাখিবারে স্থির |

.              **************

১৩০৮


.           
Tagore's translation of this song for English Gitanjali   
.                                                  গীতাঞ্জলির সূচির পাতায়  
.                                         
Gitanjali (English) index page    


মিলনসাগর
*
গীতাঞ্জলি (বাংলা), রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

.     ইংরেজী গীতাঞ্জলিতে রচনা সংখ্যা ৪০ এর মূল বাংলা গীত


দীর্ঘকাল, অনাবৃষ্টি, অতি দীর্ঘকাল,
হে ইন্দ্র, হদয়ে মম | দিক্চক্রবাল
ভয়ংকর শূণ্য হেরি, নাই কোনোখানে
সরস সজল রেখা--- কেহ নাহি আনে
নব-বারিবর্ষণের শ্যামল সংবাদ |

যদি ইচ্ছা হয়, দেব, আনো বজ্রনাদ
প্রলয়মুখর হিংস্র ঝটিকার সাথে |
পলে পলে বিদ্যুতের বক্র কশাঘাতে
সচকিত কর মোর দিগদিগন্তর |
সংহরো সংহরো, প্রভো, নিস্তব্ধ প্রখর
এই রুদ্র, এই ব্যাপ্ত, এ নিঃশব্দ দাহ
নিঃসহ নৈরাশ্যতাপ | চাহো নাথ চাহো
জননী জেমন চাহে সজলনয়ানে
পিতার ক্রোধের দিনে সন্তানের পানে |

.              **************

১৩০৮


.           
Tagore's translation of this song for English Gitanjali   
.                                                  গীতাঞ্জলির সূচির পাতায়  
.                                         
Gitanjali (English) index page    


মিলনসাগর
*
গীতাঞ্জলি (বাংলা), রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

.     ইংরেজী গীতাঞ্জলিতে রচনা সংখ্যা ৪১ এর মূল বাংলা গীত


কোথায় ছায়াক কোণে দাঁড়িয়ে তুমি কিসের প্রতীক্ষায় ?
.             কেন আছ সবার পিছে ?
যারা ধূলাপায়ে ধায়গো পথে তোমায় ঠেলে যায়
.             তারা তোমায় ভাবে মিছে |
আমি তোমার লাগি কুসুম তুলি, বসি তরুর মূলে
.             আমি সাজিয়ে রাখি ডালি ---
ওগো --- যে আসে সেই একটি দুটি নিয়ে যে যায় যে তুলে
.             আমার সাজি যে হয় খালি |

ওগো --- সকাল গেল, বিকাল গেল, সন্ধ্যা হয়ে আসে,
.             চোখে লাগলো ঘুমের ঘোর ---
ঘরের পানে যাবার বেলা আমায় দেখে হাসে
.             মনে লজ্জা লাগে মোর |
আমি সেথা বসে আছি বসনখানি টেনে মুখের পরে
.             যেন ভিখারিনীর মত ---
শুধায় যদি "কি চাও তুমি" থাকি নিরুত্তরে,
.             করি দুটি নয়ন নত |

আজি কেমন করে বলব আমি তোমায় শুধু চাহি---
.             তুমি আসবে আমার লাগি---
আমি তোমার পথ চেয়ে শুধু রজনীদিন বাহি
.             আমি রজনীদিন জাগি!
দৈন্যখানি যত্নে রাখি, রাজৈশ্বয্যে তব
.              তারে দিব বিসর্জ্জন ; ---
অভাগিনীর এ অভিমান কাহার কাছে কব
.              তাহা রৈল সঙ্গোপন |

আমি সুদূরপানে চেয়ে চেয়ে ভাবি আপন মনে
.              হেথা তৃণে আসন মেলে ---
তুমি হঠাৎ কখন আসবে হেথায় বিপুল আয়োজনে
.               তোমার সকল আলো জ্বেলে |
তোমার রথের পরে সোনার ধ্বজা ঝলবে ঝলমল
.               সাথে বাজবে বাঁশির তান,---
তোমার প্রতাপভরে বসুন্ধরা করবে টলমল
.               আমার উঠবে নেচে প্রাণ |


তখন পথের লোকে অবাক হয়ে সবাই চেয়ে রবে,
.               তুমি নেমে আসবে পথে |
হোসে দু'হাত ধরে ধুলা হতে আমায় তুলে লবে ---
.                তুমি লবে তোমার রথে |
আমার ভূষণবিহীন মলিনবেশে ভিখারিনীর সাজে
.                তোমার দাঁড়ায় বসে পাশে ---
তখন লতার মত কাঁদবো আমি, গর্ব্বে সুখে লাজে
.                সকল বিশ্বের সকাশে |
.                তারে রাখবে মলিন বেশে ?

ওগো সময় বয়ে যাচ্ছে চলে রয়েছি কান পেতে
.                কোথা কইগো চাকার ধ্বনি ---
তোমার এপথ দিয়ে কত না লোক গর্বে কাল যেতে ---
.                কতই জাগিয়ে রণরনি |
তবে তুমিই কি গো নীরব হয়ে রবে ছায়ার তলে
.                তুমি রবে সবার শেষে ---
হেথায় ভিখারিনীর লজ্জা কি গো ঝরবে নয়ন জলে ---
.                তারে রাখবে মলিন বেশে ?

.                         **************

শান্তিনিকেতন, বোলপুর
২রা আষাঢ় ১৩১৩

.            
Tagore's translation of this song for English Gitanjali   
.                                                  গীতাঞ্জলির সূচির পাতায়  
.                                         
Gitanjali (English) index page    


মিলনসাগর
*
গীতাঞ্জলি (বাংলা), রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

.     ইংরেজী গীতাঞ্জলিতে রচনা সংখ্যা ৪৩ এর মূল বাংলা গীত


তখন করি নি নাথ, কোন আয়োজন
বিশ্বের সবার সাথে, হে বিশ্বরাজন,
অজ্ঞাতে আসিতে হাসি আমার অন্তরে
কত শুভদিনে ; কত মুহুর্তের 'পরে
অসীমের চিহ্ন লিখে গেছ | লই তুলি
তোমার সাক্ষর-আঁকা সেই ক্ষণগুলি---
দেখি তারা স্মৃতি-মাঝে আছিল ছড়ায়ে
কত-না ধুলির সাথে, আছিল জড়ায়ে
ক্ষণিকের কত তুচ্ছ সুখদুঃখ ঘিরে |

হে নাথ, অবজ্ঞা করি যাও নাই ফিরে
আমার সে ধুলাস্তুপ খেলাঘর দেখে |
খেলা-মাঝে শুনিতে পেয়েছি থেকে থেকে
যে চরণধ্বনি-আজ শুনি তাই বাজে
জগত্সঙ্গীত-সাথে চন্দ্রসূর্য-মাঝে |

.            **************

১৩০৮

.           
Tagore's translation of this song for English Gitanjali   
.                                                  গীতাঞ্জলির সূচির পাতায়  
.                                         
Gitanjali (English) index page    


মিলনসাগর
*
গীতাঞ্জলি (বাংলা), রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

.     ইংরেজী গীতাঞ্জলিতে রচনা সংখ্যা ৪৪ এর মূল বাংলা গীত


আমার এই               পথ চাওয়াতেই
.                                  আনন্দ |
.            খেলে যায়         রৌদ্র ছায়া,
.                       বর্ষা আসে
.                                বসন্ত |
.            কারা এই          সমুখ দিয়ে
.            আসে যায়         খবর নিয়ে,
.            খুশি রই            আপন মনে,
.                       বাতাস বহে
.                                 সুমন্দ |
.             সারাদিন           আঁখি মেলে
.                       দুয়ারে   রব একা |
.             শুভখন             হঠাৎ এলে
.                       তখনি    পাব দেখা |
.             ততখন             ক্ষণে ক্ষণে
.             হাসি গাই                 মনে মনে,
.             ততখন             রহি রহি
.                       ভেসে আসে
.                                   সুগন্ধ |
.             আমার এই          পথ-চাওয়াতেই
.                                   আনন্দ |     

.                        **************

শিলাইদহ
১৭ চৈত্র ১৩০৮

.            
Tagore's translation of this song for English Gitanjali   
.                                                  গীতাঞ্জলির সূচির পাতায়  
.                                         
Gitanjali (English) index page    


মিলনসাগর
*
গীতাঞ্জলি (বাংলা), রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

.     ইংরেজী গীতাঞ্জলিতে রচনা সংখ্যা ৫৩ এর মূল বাংলা গীত


সুন্দর বটে তব অঙ্গদখানি
.          তারায় তারায় খচিত,
স্বর্ণে রত্নে শোভন লোভন জানি
.          বর্ণে বর্ণে রচিত |
খড়গ তোমার আরো মনোহর লাগে
.          বাঁকা বিদ্যুতে আঁকা সে,
গরুড়ের পাখা রক্ত রবির রাগে
.          যেন গো অস্ত আকাশে |
জীবনশেষের শেষ জাগরণসম
.          ঝলসিছে মহা বেদনা---
নিমেষে দহিয়া যাহা কিছু আছে মম
.          তীব্র ভীষণ চেতনা |
সুন্দর বটে তব অঙ্গদখানি
.          তারায় তারায় খচিত ---
খড়গ তোমার, হে দেব বজ্রপানি,
.          চরম শোভায় রচিত |    

.                        **************

The Health
2 Holford Road
Hampstead
২৫ জুন ১৯১২

.            
Tagore's translation of this song for English Gitanjali   
.                                                  গীতাঞ্জলির সূচির পাতায়  
.                                         
Gitanjali (English) index page    


মিলনসাগর
*
গীতাঞ্জলি (বাংলা), রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

.     ইংরেজী গীতাঞ্জলিতে রচনা সংখ্যা ৪৭ এর মূল বাংলা গীত


পথ চেয়ে ত কাটল নিশি ;
.     লাগচে মনে ভয় ---
সকাল বেলা ঘুমিয়ে পড়ি
.     যদি এমন হয় |
যদি তখন হঠাৎ এসে
দাঁড়ায় আমার দুয়ার দেশে!
বনছায়ায় ঘেরা এ ঘর
.           আছে ত তার জানা ---
ওগো তোরা পথ ছেড়ে দিস্,
.           করিসনে কেউ মানা |

যদিবা তার পায়ের শব্দে
.       ঘুম না ভাঙে মোর
শপথ আমার তোরা কেহ
.       ভাঙাসনে সেই ঘোর |
চাইনে জাগতে পাখীর রবে
নতুন আলোর মহোত্সবে,
চাইনে জাগতে হাওয়ায় আকুল
.            বনফুলের বাসে,
তোরা আমায় ঘুমতে দিস্
.            যদিই বা সে আসে |

ওগো আমার ঘুম যে ভালো
.        গভীর অচেতনে,
যদি আমায় জাগায় তারি
.         আপন পরশনে |
ঘুমের আবেশ যেমনি টুটি,
দেখব তারি নয়ন দুটি ---
মুখে আমার তারি হাসি
.             পড়বে সকৌতুকে ---
সে যেন মোর সুখের স্বপন
.             দাঁড়াবে সম্মুখে |

সে আসবে মোর চোখের পরে
.         সকল আলোর আগে ---
তাহারি রূপ মোর প্রভাতের
.          প্রথম হয়ে জাগে |
প্রথম চমক লাগবে সুখে
চেয়ে তারি করুণ মুখে,
.              তার চেতনায় ভরে' |
তোরা আমায় জাগাসনো কেউ,
.              জাগাবে সেই মোরে!    

.                  **************


কলকাতা
১০ চৈত্র ১৩১২

.            
Tagore's translation of this song for English Gitanjali   
.                                                  গীতাঞ্জলির সূচির পাতায়  
.                                         
Gitanjali (English) index page    


মিলনসাগর
*
গীতাঞ্জলি (বাংলা), রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

.     ইংরেজী গীতাঞ্জলিতে রচনা সংখ্যা ৪৮ এর মূল বাংলা গীত


তখন        আকাশ তলে ঢেউ তুলেছে
.                  পাখীরা গান গেয়ে |
.              তখন পথের দুটি ধারে
.              ফুল ফুটেছে ভারে ভারে,
.              মেঘের কোণে রং ধরেছে,
.                  দেখিনি কেউ চেয়ে |
মোরা        আপন মনে সিধা পথে
.                  চলেছিলেম ধেয়ে |


মোরা        সুখের বশে গাহি নি গান,
.                  করি নি কেউ খেলা |
.              চাহিনি কেউ ডাহিন বাঁয়ে,
.              হাটের লাগি যাইনি গাঁয়ে,
.              লক্ষ্য ভুলে বসিনি কেউ,
.                   করি নি কেউ হেলা ---
মোরা         তত বেগে চলেছিলেম
.                    যতই বাড়ে বেলা |


শেষে         সূর্য্য যখন মাঝ আকাশে,
.                    কপোন ডাকে বনে,
.               তপ্ত হাওয়ায় ঘুরে ঘুরে
.               শুকনো পাতা বেড়ায় উড়ে,
.               বটের তলে রাখাল শিশু
.                      ঘুমায় অচেতনে,
আমি          জলের ধারে শুলেম এসে
.                       শ্যামল তৃণাসনে |


আমার        দলের সবাই আমার পানে
.                       চেয়ে গেল হেসে |
.               চলে গেল উচ্চ শিরে
.               চাইল না কেউ পিছু ফিরে,
.               মিলিয়ে গেল সুদূর ছায়ায়
.                        পথতরুর শেষে
তারা          পেরিয়ে গেল কত যে মাঠ
.                         কত দূরের দেশে |


ওগো          ধন্য তোমরা দুখের যাত্রী
.                         ধন্য তোমরা সবে---
.               লাজের ঘায়ে উঠিতে চাই,
.               মনের মাঝে সারা না পাই,
.               মগ্ন হলেম আনন্দময়
.                          অগাধ অগৌরবে,
.               পাখীর গানে, বাঁশির তানে,
.                          কম্পিত পল্লবে |


আমি          আমি মুগ্ধ তনু দিলাম মেলে
.                          বসুন্ধরার কোলে |
.                বাঁশের ছায়া কি কৌতুকে
.                নাচে আমার চোখে মুখে,
.                আমের মুকুল গন্ধে আমায়
.                           আকুল করে তোলে ---
নয়ন            মুদে অলস মৌমাছিদের
.                           গুঞ্জন-কল্লোলে |


সেই             রৌদ্রে ঘেরা সবুজ আরাম
.                           মিলিয়ে এল প্রাণে |
.                 ভুলে গেলেম কিসের তরে
.                 বাহির হলেম পথের পরে ; ---
.                 ঢেলে দিলেম চেতনা মোর
.                           ছায়ায় গন্ধে গানে, ---
ধীরে             ঘুমিয়ে পেলেম অলস দেহে
.                           কখন কে তা জানে |


শেষে            গভীর ঘুমের মধ্য হতে
.                            ফুটল যখন আঁখি
.                  চেয়ে দেখি, কখন এসে
.                  তুমি আছ শিয়র দেশে,
.                  তোমার হাসি দিয়ে আমার
.                             অচৈতন্য ঢাকি |
ওগো ---          ভেবেছিলেম আছে আমার
.                             কত না পথ বাকি!


মোরা             ভেবেছিলাম পরাণপনে
.                             সজাগ রব সবে ; ---
.                   সন্ধ্যা হবার আগে যদি
.                   পার হতে না পারি নদী,
.                   ভেবেছিলেম তাহা হলেই
.                             সবি বিফল হবে |
আমি              কখন্ থেমে গেলেম, তুমি
.                             আপনি এলে কবে |    

.                    **************


কলকাতা
৬ চৈত্র ১৩১২

.            
Tagore's translation of this song for English Gitanjali   
.                                                  গীতাঞ্জলির সূচির পাতায়  
.                                         
Gitanjali (English) index page    


মিলনসাগর
*
গীতাঞ্জলি (বাংলা), রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

.     ইংরেজী গীতাঞ্জলিতে রচনা সংখ্যা ৫০ এর মূল বাংলা গীত


আমি      ভিক্ষা করে ফিরতেছিলেম
.                       গ্রামের পথে পথে
.            তুমি তখন চলেছিলে
.                       তোমার স্বর্ণরথে |
.            অপূর্ব্ব এক স্বপ্নসম
.            লাগতেছিল চক্ষে মম,
.            কি বিচিত্র শোভা তোমার,
.                       কি বিচিত্র সাজ |
.            আমি মনে ভাবতেছিলেম
.                       এ কোন্ মহারাজ |


আজি      শুভক্ষণে রাত পোহাল.     
.                       ভেবেছিলেম তবে,
.            আজ আমার দ্বারে দ্বারে
.                       ফিরতে নাহি হবে |
.            বাহির হতে নাহি হতে
.            কাহার দেখা পেলেম পথে,
.            চলিতে রথ ধনধান্য
.                       ছড়াবে দুই ধারে |
.            মুঠা মুঠা কুড়িয়ে ফের
.                       নেব ভারে ভারে |


দেখি        সহসা রথ থেমে গেল
.                       আমার কাছে এসে |
.             আমার মুখপানে চেয়ে
.                       নামলে তুমি হেসে |
.             দেখে মুখের প্রসন্নতা
.             জুড়িয়ে গেল সকল ব্যথা, ---
.             হেন কালে, কিসের লাগি
.                       তুমি অকস্মাৎ
.             "আমায় কিছু দাও গো" বলে
.                       বাড়িয়ে দিলে হাত |


মরি,         এ কি কথা রাজাধিরাজ!
.                        "আমায় দাও গো কিছু!"
.              শুনে ক্ষণকালের তরে
.                        রৈনু মাথা নীচু!
.              তোমার কিবা অভাব আছে
.              ভিক্ষা চাও ভিখারীর কাছে!
.              এ কেবল কৌতুকের বশে
.                        আমায় প্রবঞ্চনা ---
.              ঝুলি হাতে দিলাম তুলে
.                        একটি ছোট কণা |


যবে          পাত্রখানি ঘরে এনে
.                        উজাড় করি,--- একি!
.              ভিক্ষা মাঝে একটি ছোটো
.                         সোনার কণা দেখি |
.               দিলেম যা রাজ-ভিখারীরে
.               স্বর্ণ হয়ে এল ফিরে,---
.               তখন কাঁদি চোখের জলে
.                          দুটি নয়ন ভরে ---
.               তোমায় কেন দেইনি আমার
.                          সকল শূণ্য করে!    

.                    **************


কলকাতা
৮ চৈত্র

.            
Tagore's translation of this song for English Gitanjali   
.                                                  গীতাঞ্জলির সূচির পাতায়  
.                                         
Gitanjali (English) index page    


মিলনসাগর
*
গীতাঞ্জলি (বাংলা), রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

.     ইংরেজী গীতাঞ্জলিতে রচনা সংখ্যা ৫১ এর মূল বাংলা গীত


তখন রাত্রি আঁধার হল |
.        সাঙ্গ হল কাজ ---
আমরা মনে ভেবেছিলেম
.        আসবে না কেউ আজ |
মোদের গ্রামে দুয়ার যত
রুদ্ধ ছিল রাতের মত,
দু'এক জনে বলেছিল
.         "আসবে মহারাজ!"
আমরা হেসে বলেছিলেম
.          "আসবে না কেউ আজ!"


দ্বারে যেন আঘাত হল
.           শুনেছিলেম সবে,
আমরা তখন বলেছিলেম
.           বাতাস বুঝি হবে |
নিবিয়ে প্রদীপ ঘরে ঘরে
শুয়েছিলেম অলস ভরে,
দু' এক জনে বলেছিল
   "দূত এল বা তবে!"
আমরা হেসে বলেছিলেম
.           বাতাস বুঝি হবে!


নিশীথরাতে শোনা গেল
.           কিসের যেন ধ্বনি |
ঘুমের ঘোরে ভেবেছিলেম
.           "মেঘের গরজনি!"
ক্ষণে ক্ষণে চেতন করি
কাঁপল ধরা থরহরি,
দু' একজনে বলেছিল
.            "চাকার ঝনঝনি---"
ঘুমের ঘোরে কহি মোরা
.             "মেঘের গরজনি!"


তখনো রাত আঁধার আছে ---
.            বেজে উঠল ভেরী ---
কে ফুকারে "জাগ সবাই,
.            আর কোরো না দেরী!"
বক্ষ পরে দুহাত চেপে
আমরা ভয়ে উঠি কেঁপে,
দুয়েক জনে কহে কানে
.            "রাজার ধ্বজা হেরি!"
আমরা জেগে উঠে বলি
.            "আর তবে নয় দেরী"


কোথায় আলো, কোথায় মাল্য
.            কোথায় আয়োজন!
রাজা আমার দেশে এল
.             কোথায় সিংহাসন!
হায়রে ভাগ্য, হায়রে লজ্জা,
কোথায় সভা, কোথায় সজ্জা!
দু একজনে কহে কানে,
.             "বৃথা এ ক্রন্দন ---
রিক্ত করে শূণ্য ঘরে
.              কর অভ্যর্থন!"


ওরে দুয়ার খুলে দে রে,
.              বাজা শঙ্খ বাজা,
গভীর রাতে এসেছে আজ
.              আঁধার ঘরের রাজা |
বজ্র ডাকে শূণ্যতলে
বিদ্যুতেরি ঝিলিক ঝলে,
ছিন্নাশয়ন টেনে এনে
.               আঙিনা তোর সাজা!
ঝড়ের সাথে হঠাৎ এল
.               দুঃখরাতের রাজা!        

.                **************


কলকাতা
২৮ শ্রাবণ ১৩১২

.           
Tagore's translation of this song for English Gitanjali   
.                                                  গীতাঞ্জলির সূচির পাতায়  
.                                         
Gitanjali (English) index page    


মিলনসাগর
*
গীতাঞ্জলি (বাংলা), রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

.     ইংরেজী গীতাঞ্জলিতে রচনা সংখ্যা ৫২ এর মূল বাংলা গীত


ভেবেছিলেম চেয়ে নেব ---
.           চাইনি সাহস করে ---
সন্ধেবেলায় যে মালাটি
.           গলায় ছিলে পরে ---
আমি চাইনি সাহস করে!
ভেবেছিলেম সকাল হলে
যখন পারে যাবে চলে ---
ছিন্নমালা শয্যাতলে
.            থাকবে বুঝি পড়ে,---
তাই আমি কাঙালের মত
.             এসেছিলেম ভোরে ---
তবু চাইনি সাহস করে |


এ ত মালা নয়গো, এ যে
.             তোমার তরবারী ---
জ্বলে ওঠে আগুন যেন
.             বজ্র হেন ভারী ---
এ যে তোমার তরবারী!
অরুণ আলো জানলা বেয়ে
পড়ল তোমার শয়ন ছেয়ে,
ভোরের পাখী শুধায় গেয়ে
.             "কি পেলি তুই নারী ?"
নয় এ মালা, নয় এ থালা,
.             গন্ধজলের ঝারি ---
এ যে ভীষণ তরবারী!


তাই ত আমি ভাবি বসে
.              এ কি তোমার দান!
কোথায় এরে লুকিয়ে রাখি
.              নাই যে হেন স্থান!
ওগো এ কি তোমার দান!
শক্তিহীনা মরি লাজে,
এ ভূষণ কি আমায় সাজে,
রাখতে গেলে বুকের মাঝে
.              ব্যথা যে পায় প্রাণ ---
তবু আমি বইব বুকে
.              এই বেদনার মান ---
নিয়ে তোমারি এই দান!


আজকে হতে জগৎ মাঝে
.               ছাড়ব আমি ভয় ---
আজ হতে মোর সকল কাজে
.               তোমার হবে জয় ---
আমি ছাড়ব সকল ভয়!
মরণকে মোর দোসর করে
রেখে গেছ আমার ঘরে
আমি তারে বরণ করে
.               রাখবো নিখিলময়!
তোমার তরবারী আমার
.               করবে বাঁধন ক্ষয় ---
আমি ছাড়ব সকল ভয়!


তোমার লাগি একলা ঘরে
.               করবনাকো সাজ |
নাইবা তুমি ফিরে এলে
.                ওগো হৃদয় রাজ!
আমি করব নাকো সাজ!
ধূলোয় বসে তোমার তরে,
তোমার লাগি ঘরে পরে
.                
করব না আর লাজ!
তোমার তরবারী আমায়
.               সাজিয়ে দিল আজ
আমি করব নাকো সাজ |        

.          **************


গিরিডি
২৬ ভাদ্র ১৩১২

.           
Tagore's translation of this song for English Gitanjali   
.                                                  গীতাঞ্জলির সূচির পাতায়  
.                                         
Gitanjali (English) index page    


মিলনসাগর
*
গীতাঞ্জলি (বাংলা), রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

.     ইংরেজী গীতাঞ্জলিতে রচনা সংখ্যা ৫৪ এর মূল বাংলা গীত


তোমার কাছে চাইনি কিছু
.          জানাই নি মোর নাম |
তুমি যখন বিদায় নিলে
.          নীরব রহিলাম |
বসেছিলাম কুয়ার ধারে
.           নীমের ছায়া তলে,
কলস নিয়ে সবাই তখন
.            পাড়ায় গেছে চলে |
আমায় তারা ডেকে গেল
.            "আয় গো বেলা যায়!"
কোন্ আলসে রইনু বসে
.            কিসের ভাবনায়!


পদধ্বনি শুনি নাইকো
.            কখন তুমি এলে |
কইলে তুমি ক্লান্ত স্বরে
.             করুণ আঁখি মেলে ---
"তৃষ্ণাকাতর পান্থ আমি"---
.              শুনে চমকে উঠে
জলের ধারা দিলেম ঢেলে
.               তোমার করপুটে |
মর্মরিয়া কাঁপে পাতা,
.               কোকিল কোথা ডাকে,
বাবলা ফুলের গন্ধ ওঠে
.               পল্লিপথের বাঁকে |


যখন তুমি শুধালে নাম
.               পেলেম বড় লাজ ---
তোমার মনে থাকার মত
.                করেছি কোন্ কাজ ?
তোমায় দিতে পেরেছিলেম
.                একটু তৃষার জল
এই কথাটি আমার মনে
.                রহিল সম্বল |
কুয়ার ধারে দুপুর বেলা
.                তেমনি ডাকে পাখী,
তেমনি কাঁপে নিমের পাতা,
.                আমি বসেই থাকি |       

.                 **************


৯ চৈত্র ১৩১২

.           
Tagore's translation of this song for English Gitanjali   
.                                                  গীতাঞ্জলির সূচির পাতায়  
.                                         
Gitanjali (English) index page    


মিলনসাগর
*
গীতাঞ্জলি (বাংলা), রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

.     ইংরেজী গীতাঞ্জলিতে রচনা সংখ্যা ৫৫ এর মূল বাংলা গীত


এখনো ঘোর ভাঙে না তোর যে
.           মেলে না তোর আঁখি,
কাঁটার বনে ফুল ফুটেছে রে
.            জানিস্ নে তুই তা কি |
ওরে অলস     জানিস্ নে তুই তা কি ?
.            জাগো এবার জাগো,
.            বেলা কাটাস না গো |


.             কঠিন পথের শেষে
কোথায়     অগম বিজন দেশে
ও সেই      বন্ধু আমার একলা আছে গো
.              দিস নে তারে ফাঁকি |
চির জীবন   দিস্ নে তারে ফাঁকি |
.              জাগো এবার জাগো
.              বেলা কাটাস না গো |


.              প্রখর রবির তাপে
না হয়        শুষ্ক গগন কাঁপে,
না হয়        দগ্ধ বালু তপ্ত আঁচলে
.              দিক্ চারিদিক ঢাকি |
পিপাসাতে   দিক চারিদিক ঢাকি |
.              মনের মাঝে চাহি
দেখ্ রে       আনন্দ কি নাহি ?
পথে          পায়ে পায়ে দুখের বাঁশরী
.               বাজবে তোরে ডাকি |
মধুর সুরে    বাজবে তোরে ডাকি |
.               জাগো এবার জাগো
.               বেলা কাটাস না গো |       

.                   **************

শিলাইদা
২৭ চৈত্র ১৩১৮

.           
Tagore's translation of this song for English Gitanjali   
.                                                  গীতাঞ্জলির সূচির পাতায়  
.                                         
Gitanjali (English) index page    


মিলনসাগর